সর্বশেষ খবর

   সিলেটে মিডল্যান্ড ব্যাংক    রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারের প্রতিশ্রুতি ধোঁকাবাজি: আরসা    মাংস এবং উচ্চ ক্যালোরিযুক্ত পানীয় ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ায়    ইনস্টাগ্রামের নয়া ফিচার, দেখেছেন কি?    প্রকাশ্যে চুমু, ‘দেশি গার্ল’-এর বিদেশি রোম্যান্স    নেতানিয়াহুর সঙ্গে সাক্ষাতে অস্বীকৃতি তিন খানের    ১০৫ রানেই শেষ পাকিস্তানের ইনিংস!    আইপিএলে এলিট তালিকায় সাকিব    নেতাকর্মীদের জেলে রেখে নির্বাচন হবে না: ফখরুল    সুনির্দিষ্ট অভিযোগে ভিত্তিতেই গ্রেফতার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী    রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন হচ্ছে না কাল    সিলেটের দক্ষিন সুরমায় বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ৪    সোবহানীঘাটে আবাসিক হোটেল থেকে প্রেমিক-প্রেমিকার লাশ উদ্ধার    মন্ত্রণালয়ের দুই কর্মকর্তাসহ নিখোঁজ তিনজন গ্রেফতার    যুবলীগের বিভাগীয় প্রতিনিধি সমাবেশে অর্থমন্ত্রীকে নিমন্ত্রণ    গোয়াইনঘাট থানার আসামী উপশহরে গ্রেফতার    হবিগঞ্জে জমির আইল কাটা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৪০    সিলেট জেলা বিএনপির আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত    কোম্পানীগঞ্জে পরীক্ষার্থীকে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন॥    দক্ষিণ সুরমায় সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার


খবর - অর্থনীতি

সিলেটে মিডল্যান্ড ব্যাংক

মিডল্যান্ড ব্যাংক লিমিটেড-এর সিলেট শাখা সম্প্রতি সিলেট জেলা সদরের কোতোয়ালী থানার চৌহাট্টায় আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী জনাব মোঃ আহসান-উজ জামান, প্রধান অতিথি হিসাবে আনুষ্ঠানিক ভাবে শাখাটির শুভ উদ্বোধন করেন।
 এসময়ে আরো উপস্থিত ছিলেন খন্দকার সিপার আহমেদ, প্রেসিডেন্ট, সিলেট চেম্বার এন্ড কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ, সালাউদ্দিন আলী আহমেদ, পরিচালক, এফবিসিসিআই, মোঃ সাজ্জাদ হোসেন, মহাব্যবস্থাপক, বাংলাদেশ ব্যাংক সিলেট অফিস সহ অন্যান্য বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও ব্যক্তিবর্গ । অনুষ্ঠানে ব্যাংকের সম্মাানিত গ্রাহক, শুভনুধ্যায়ী ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ব্যাংকের রিটেল ডিস্ট্রিবিউশনস বিভাগের প্রধান মোঃ বিস্তারিত

ব্যাংকিং খাতে জবাবদিহিতার জন্য পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে : অর্থমন্ত্রী

ঢাকা: অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত বলেছেন, ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে অনিয়ম ও ত্রুটিমুক্তভাবে পরিচালনা এবং স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে সরকার বিভিন্ন কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।
 তিনি আজ সংসদে সরকারি দলের সদস্য মো. ইসরাফিল আলম উত্থাপিত সিদ্ধান্ত প্রস্তাবের জবাবে বলেন, ‘ব্যাংকিং ব্যবস্থায় নিয়মকানুন সঠিকভাবে প্রতিপালনের লক্ষ্যে ১৯৯১ সালে প্রণীত ব্যাংকিং আইন বর্তমান সরকার ২০১৩ সালে সংশোধন করেছে। আইনের সংশোধনীতে বিভিন্ন ক্ষেত্রের দায়িত্ব, কর্তব্য ও কর্মপরিধি স্পষ্ট করা হয়েছে।’
গত দুই দিন আগেও ব্যাংকিং আইনে আরো একটি সংশোধনী পাস করা হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন। 
মন্ত্রী বলেন, ব্যাংকিং আইনে অভ্যন্তরীণ নিরীক্ষা ও তা প্রতিপালনের জন্য পরিচালনা পর্ষদকে দায়বদ্ধ করা হয়েছে। পরিচালনা পর্ষদের দায়িত্ব যথাযথভাবে পরিপালনের জন্যে পরিচালনা পর্ষদ সদস্যদের সমন্বয়ে অডিট ও নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা নিশ্চিত করা নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, ব্যাংকের জবাবদিহিতা বাড়াতে শেয়ার ধারণকারী পরিচালকদের পাশাপাশি স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়োগের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এখন পরিচালকের মোট সদস্য সংখ্যা ২০জন। এর মধ্যে ৩ জন স্বতন্ত্র পরিচালক থাকেন। আমানতকারী ও শেয়ার ধারকদের স্বার্থ রক্ষা ও স্বাধীন এবং নিরপেক্ষভাবে ব্যাংকের কার্যক্রম পরিচালনার জন্য স্বতন্ত্র পরিচালকদের ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আবুল মাল আব্দুল মুহিত বলেন, আমানতকারী ও অন্যান্য স্টেকহোল্ডারদের কাছে ব্যাংকের জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে ব্যাংকগুলোকে বার্ষিক ও ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে আর্থিক তথ্য রিপোর্টিং করার ব্যবস্থা করা হয়েছে। তিনি বলেন, জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে ত্রৈমাসিক ভিত্তিতে ব্যাংকসমূহের প্রধান নির্বাহীদের সাথে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের সভাপতিত্বে সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সভায় ব্যাংক সমূহের আর্থিক ব্যবস্থাপনাসহ বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়। 
বিস্তারিত

অবকাঠামো উন্নয়নে ৬০ মিলিয়ন ডলার দেবে ওএফআইডি

ওপেক ফান্ড ফর ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্ট (ওএফআইডি) দুটি উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নে বাংলাদেশকে ৬০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণ দেবে।

বুধবার এ বিষয়ে রাজধানীর একটি হোটেলে বাংলাদেশ সরকার ও ওএফআইডি দুটি ঋণচুক্তিতে স্বাক্ষর করেছে।
অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের (ইআরডি) সচিব কাজী শফিকুল আজম এবং ওএফআইডির মহাপরিচালক সুলাইমান জে আল হারবিশ চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন। অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।
প্রকল্প দুটি হচ্ছে- বরিশাল-পটুয়াখালী সড়কে পায়রা সেতু (লেবুখালী সেতু) নির্মাণ এবং দক্ষিণ এশীয় উপ-আঞ্চলিক অর্থনৈতিক সহযোগিতা (এসএএসইসি) সড়ক সংযোগ প্রকল্প।
ঋণের অর্থের ৩০ মিলিয়ন ডলার ব্যয় করা হবে পায়রা নদীর ওপর লেবুখালী সেতু নির্মাণে এবং বাকি ৩০ মিলিয়ন ডলার এসএএসইসি সড়ক সংযোগ প্রকল্পে অতিরিক্ত ব্যয় মেটাতে খরচ করা হবে।
সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের অধীন সড়ক ও মহাসড়ক অধিদপ্তর (আরএইচডি) পায়রা সেতু নির্মাণ প্রকল্প বাস্তবায়ন করবে।
ঢাকা ও দক্ষিণাঞ্চলের মধ্যে সড়ক পথে সরাসরি নিরবচ্ছিন্ন যোগাযোগ স্থাপন এবং বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কে পায়রা নদীতে পায়রা সেতু নির্মাণের মাধ্যমে দেশের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পর্যটনকেন্দ্রগুলোর অন্যতম পটুয়াখালীর কুয়াকাটায় পর্যটকদের চলাচল নিশ্চিত করতে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হবে।
চার লেনের এ সেতুটির দৈর্ঘ্য হবে ১ হাজার ৪৭০ মিটার। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে মোট ব্যয় হবে ১ হাজার ২৭৮ কোটি ৮২ লাখ টাকা (১৯৫.৮৫ মিলিয়ন ডলার)। এর মধ্যে বৈদেশিক সাহায্য পাওয়া যাবে ১২৮ মিলিয়ন ডলার। বাকি অর্থ পাওয়া যাবে সরকারি কোষাগার থেকে।
এদিকে, সরকার এসএএসইসি সড়ক সংযোগ প্রকল্পের অধীন জয়দেবপুর-চন্দ্রা-টাঙ্গাইল-হাটিকুমরুল-এলেঙ্গা চার লেন সড়কের সাথে ৭০ কিলোমিটার দীর্ঘ দুই লেনের সংযোগ সড়ক সম্প্রসারণ করছে।
সড়ক দুর্ঘটনা রোধে ধীরগতির যানবাহনের জন্য টাঙ্গাইল-এলেঙ্গা সড়কের উভয় পাশে দশ কিলোমিটার পৃথক লেন নির্মাণ করা হবে। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ওএফআইডি ৩০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার দেবে। বিস্তারিত

বাংলাদেশ যথেষ্ট সক্ষমতা অর্জন করেছে : বিশ্বব্যাংক

বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে ভূয়সী প্রশংসা করেছেন ঢাকায় সফররত বিশ্বব্যাংকের  দক্ষিণ এশিয়া বিষয়ক ভাইস প্রেসিডেন্ট এনেট ডিক্সসন।

তিনি বলেন, বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়নে গত ছয় বছরে বাংলাদেশ যথেষ্ট সক্ষমতা অর্জন করেছে। এটা নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়।
মঙ্গলবার বিকেলে সচিবালয়ে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল মুহিতের সঙ্গে বিশ্বব্যাংকের ১০ সদস্যের একটি প্রতিনিধিদল সাক্ষাৎ করে। পরে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় বিশ্বব্যাংকের প্রতিনিধিদলের প্রধান এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট এনেট ডিক্সসন এ কথা বলেন।
বিশ্বব্যাংকের ভাইস প্রেসিডেন্ট বলেন, অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে বাংলাদেশের অর্থনীতির গতিধারা, বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে চলমান বিভিন্ন প্রকল্পের অগ্রগতি, রোহিঙ্গ ইস্যুসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা হয়েছে। বাংলাদেশ বিভিন্ন খাতে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি অর্জন করেছে এটা সত্যি প্রশংসনীয়।
তিনি বলেন, বাংলাদেশ এখন যেষব আর্থিক সহায়তা নিচ্ছে সেগুলো সুষ্ঠুভাবে ব্যবহার করার সক্ষমতা অর্জন করেছে। চলতি তিন বছর বিশ্বব্যাংক বাংলাদেশকে ৪ দশমিক ৪ বিলিয়ন ডলার আর্থিক সহায়তা দিয়েছে। বাংলাদেশকে এ সহায়তা অব্যাহত রাখবে বিশ্বব্যাংক।
পরে অর্থমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, বিশ্বব্যাংকের প্রতিনিধিদলের সঙ্গে অত্যন্ত ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে। বিভিন্ন ইস্যু নিয়ে আমাদের কথা হয়েছে। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে তারা তাদের সহযোগিতা অব্যাহত রাখার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

বিস্তারিত

ব্যাংকে একই পরিবারের ৪ পরিচালক রেখে সংশোধন বিল পাস

ঢাকা : ব্যাংক কোম্পানিতে একক পরিবারের দু’জনের স্থলে চারজনকে পরিচালক করার বিধান করে আজ সংসদে ব্যাংক কোম্পানী সংশোধন বিল-২০১৮ পাস করা হয়েছে।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বিলটি পাসের প্রস্তাব করেন।

বিলে বিদ্যমান ব্যাংক কোম্পানী আইনের ধারা ৩-এর উপ-ধারা (৩)-এর সংশোধন করা হয়েছে।
এছাড়া বিদ্যমান আইনের ধারা ৭-এর উপ-ধারা (৩)-এর সংশোধন করা হয়েছে।
বিলে একইভাবে বিদ্যমান আইনের ধারা ৮-এর শতাংশের দফা (ক)-তে উল্লেখিত ধারা-২৬ (১)-এর সংশোধন করা হয়েছে। এছাড়া বিদ্যমান আইনের ধারা ১৫-এর উপ-ধারা ৪-এ উল্লেখিত প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শব্দগুলোর পর নির্বাচন বা ক্ষেত্রমতে মনোনয়নের পর শব্দগুলো সন্নিবেশিত করা হয়।
বিলে বিদ্যমান আইনের ধারা ১৫-এর উপ-ধারা ১০-এ উল্লেখিত দু’জনের শব্দটির পরিবর্তে চারজনের শব্দটি প্রতিস্থাপন করা হয়েছে। এর ফলে বিলে ব্যাংক কোম্পানীর কোন একক পরিবারের দু’জন পরিচালক রাখার বিদ্যমান বিধান সংশোধন করে চারজন করার বিধান করা হলো।
জাতীয় পার্টির রুস্তম আলী ফরাজী, ফখরুল ইমাম, নূরুল ইসলাম ওমর, নূরুল ইসলাম মিলন, বেগম রওশন আরা মান্নান ও বেগম নূর-ই-হাসনা লিলি চৌধুরী বিলের ওপর জনমত যাচাই, বাছাই কমিটিতে প্রেরণের প্রস্তাব আনলে তা কণ্ঠভোটে নাকচ হয়ে যায়।
এদিকে আজ সংসদে শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু সংসদে ইতোপূর্বে উত্থাপিত ‘বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প করপোরেশন বিল, ২০১৬’ প্রত্যাহার করে নেন। বিস্তারিত

বিশ্বমানের নাট, বোল্ট, স্ক্রু তৈরি করছে ওয়াল্টন

ঢাকা: নাট, বোল্ট ও স্ক্রু- বিভিন্ন শিল্প কারখানায় আসবাবপত্র থেকে শুরু করে ইলেকট্রনিক্স, ইলেকট্রিক্যাল, অটোমোবইলসহ অসংখ্য পণ্য উৎপাদনের অন্যতম কাঁচামাল। আকারে ছোট হলেও এসব প্রকৌশল পণ্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন। সংশ্লিষ্ট পণ্যের দীর্ঘস্থায়ীত্বের জন্য এগুলো যথেষ্ট মানসম্পন্ন হতে হয়। ব্যাকওয়ার্ড লিংকেজ শিল্পের এসব পণ্য ‘ইন্ডাস্ট্রিয়াল সলিউশনস’ হিসেবেও পরিচিত। বাংলাদেশে এই খাতের রয়েছে বিশাল বাজার। যার বেশিরভাগ আমদানি নির্ভর। ওয়ালটন এখন দেশেই তৈরি করছে আমদানি বিকল্প বিশ্বমান সম্পন্ন নাট, বোল্ট ও স্ক্রু। নিজেদের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশে রপ্তানির প্রস্তুতিও নিচ্ছে ওয়ালটন।
 ২০১৭ সনে গাজীপুরের চন্দ্রায় ওয়ালটনের হাই টেক ইন্ডাস্ট্রিজে স্থাপন করা হয়েছে নাট-বোল্ট ও স্ক্রু’র উৎপাদন কারখানা। যার বার্ষিক উৎপাদন ক্ষমতা ১৮০০ টন। নিজস্ব চাহিদা ৩৬০ থেকে ৪০০ টন।  সে হিসেবে প্রায় ১৩০০ টন নাট-বোল্ট-স্ক্রু দেশী-বিদেশী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে সরবরাহের পরিকল্পনা রয়েছে। এরইমধ্যে দেশীয় কিছু ফার্নিচার, বাইসাইকেল, মোটরসাইকেল ও কিচেন এ্যাপ্লায়েন্সেস প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। এ ধরনের পণ্য দেশে উৎপাদিত হওয়ায় আর আমদানিতে করতে হবে না ভেবে তারা স্বস্তি প্রকাশ করেছেন। সন্তোষ প্রকাশ করেছেন এর মান নিয়েও। বিদেশী কিছু প্রতিষ্ঠানের সঙ্গেও রপ্তানি বিষয়ে আলোচনা চলছে।  ওয়ালটনের স্ক্রু আরএনডি (গবেষণা ও উন্নয়ন) বিভাগের প্রধান পৃথ্বিশ কুমার সাহা বলেন, বিশ্বের লেটেস্ট প্রযুক্তির মেশিনারিজ ও দক্ষ প্রকৌশলী-টেকনিশিয়ানের সমন্বয়ে গড়ে তোলা হয়েছে নাট-বোল্ট ও স্ক্রু’র উৎপাদন ইউনিট। এখানে বিভিন্ন সাইজের ফাসেনার (ঋধংঃবহবৎ- যা দিয়ে বিভিন্ন অংশকে একত্রে আবদ্ধ করা হয়) তৈরি করা হচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে ২ থেকে ১০ মিলিমিটার ব্যাসের এবং ৫ থেকে ৭৫ মিলিমিটার দৈর্ঘ্যরে সেলফ ট্যাপিং ও সেলফ ড্রিলিং স্ক্রু, ৮.৮ ও ১০.৯ গ্রেডের হেক্সাগোনাল ও অ্যালেন বোল্ট; মেশিন স্ক্রু এবং হেক্সাগোনাল নাট। উৎপাদনে ব্যবহার করা হচ্ছে তাইওয়ানের ডাই ও মেশিনারিজ। মান নিয়ন্ত্রণ বিভাগে যুক্তরাষ্ট্র ও জার্মান প্রযুক্তির ইক্যুইপমেন্ট দিয়ে আন্তর্জাতিক মান নিশ্চিত করা হচ্ছে। তিনি আরো বলেন, বিশ্বের সর্বাধুনিক ও আন্তর্জাতিক মানের উৎপাদন প্রক্রিয়া অনুসরণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে ওয়্যার ড্রইং; স্ফেরে‌্যাডাইজিং অ্যানেলিং; পিকলিং, ফসফেটিং অ্যান্ড মেটাল সোপ ট্রিটমেন্ট; কোল্ড ফর্মিং; হিট ট্রিটমেন্ট অ্যান্ড ইলেকট্রপ্ল্যেটিং। স্ক্রু এবং বোল্ট তৈরিতে ব্যবহার করা হচ্ছে উচ্চ গুণগতমানের বোরন মিশ্রিত ইস্পাত। অন্যদিকে কার্বন ইস্পাত দিয়ে তৈরি করা হচ্ছে নাট-বোল্ট। জানা গেছে, শতভাগ হিট ট্রিটমেন্টে তৈরি এসব প্রকৌশল পণ্যের মান যাচাইয়ে ব্যবহার করা হচ্ছে স্টেরিও মাইক্রোস্কোপ, ম্যাটালার্জিক্যাল মাইক্রোস্কোপ ও মাইক্রো হার্ডনেস যন্ত্র।সূক্ষভাবে এসব ধাতব পণ্যের মান যাচাইয়ে মাইক্রোস্কোপে প্রায় ১ হাজার গুণ বড় করে স্ট্রাকচারাল টেস্ট করা হয়। অন্যদিকে মাইক্রো হার্ডনেস যন্ত্র দিয়ে হার্ডনেস মাপা হয়। কমপক্ষে ৯৬ ঘন্টা সল্ট স্প্রে টেস্টে উত্তীর্ণ ওয়ালটনের নাট-বোল্ট ও স্ক্রু’র মরিচারোধক ক্ষমতা তুলনামূলক অনেক বেশি।  ওয়ালটন কম্প্রেসার আরএনডি বিভাগের প্রধান মীর মুজাহিদীন ইসলাম বলেন, কম্প্রেসারে ছয় ধরনের স্ক্রু লাগে। এসব স্ক্রু’র থ্রেড ও স্কেলিং সঠিক না হলে কম্প্রেসারে লিকেজ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই, কম্প্রেসারে ব্যবহৃত স্ক্রু উচ্চ গুণগতমানের হওয়া অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ওয়ালটন কম্প্রেসারে ব্যবহৃত স্ক্রু আগে ইটালি থেকে আনা হত। ইউরোপিয়ান স্ট্যান্ডার্ডের সমমানের স্ক্রুই এখন ওয়ালটন তৈরি করছে। দেশীয় শিল্পোদ্যাক্তাদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ওয়ালটনের তৈরি নাট-বোল্ট ও স্ক্রু’র প্রতি নিশ্চিন্তে শতভাগ আস্থা রাখা যায়।ওয়ালটনের সিনিয়র অপারেটিভ ডিরেক্টর উদয় হাকিম বলেন, দেশ-বিদেশে নাট, বোল্ট ও স্ক্রু’র মতো ইন্ডাস্ট্রিয়াল সলিউশনস এর ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। বিশ্বের বেশিরভাগ নামী-দামী প্রতিষ্ঠানগুলোও এসব আউটসোর্সিং করে থাকে। ওয়ালটন নিজেরা এসব পণ্য তৈরি করায় ইঞ্জিনিয়ারিং শিল্পে বাংলাদেশ আরো এক ধাপ এগোলো। যা দেশের শিল্পায়নকে ত্বরান্বিত করবে। 



বিস্তারিত

৮ ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল

রাষ্ট্রায়ত্ত আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা  বাতিল করেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এর আগে মঙ্গলবার সকালে বিষয়টি নিয়ে সিদ্ধান্ত নিতে জরুরি বৈঠক ডাকে বাংলাদেশ ব্যাংক। বেলা ১১টায় মতিঝিলে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সার্বিক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

রাষ্ট্রমালিকানাধীন আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিলের দাবিতে পরীক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করে। রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ওই নিয়োগ পরীক্ষায় অংশ নেওয়া বহু শিক্ষার্থী বাংলাদেশ ব্যাংকের সামনে জড়ো হন। পুলিশ সেখান থেকে তাঁদের সরিয়ে দেয়। পরে শিক্ষার্থীরা জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জড়ো হন। সেখান থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকার দিকে যান। 
পরীক্ষায় অংশ নেওয়া রোহিদুল ইসলাম বলেন,‘ কর্তৃপক্ষ একটি কেন্দ্রে সমস্যার কথা বলছে। কিন্তু এই পরীক্ষার সার্বিক চিত্র সব জায়গায়তেই খারাপ ছিল। শুধু অব্যবস্থাপনার কথা বললেও কম হয়। কোনো কোনো পরীক্ষার্থী প্রশ্ন বাইরে নিয়ে গেছে। দেরিতে পরীক্ষা শুরু হয়েছে। কোনো কেন্দ্রে আগে কোনো কেন্দ্রে পরে পরীক্ষা শুরু হয়েছে। এ অবস্থায় কোনোভাবেই পরীক্ষা দিয়ে প্রকৃত মেধা যাচাই করা সম্ভব না। পরীক্ষা বাতিলের দাবি করছি।’ পরীক্ষার্থীরা পরীক্ষায় নানা অব্যবস্থাপনার ছবি দেখান। ফেসবুক ও গণমাধ্যম থেকে পাওয়া ছবি দেখিয়ে তাঁরা পরীক্ষা নতুন করে নেওয়ার দাবি জানান। গত শুক্রবার আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষার বিভিন্ন কেন্দ্র থেকে নানা অব্যবস্থাপনার অভিযোগ পাওয়া যায়। প্রশ্নপত্র ও বসার জায়গা না পেয়ে শাহ আলী মহিলা কলেজ কেন্দ্রের পরীক্ষার্থীরা ভাঙচুর ও সড়ক অবরোধও করেছেন। ওই কেন্দ্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ২০ জানুয়ারি। গত শুক্রবার সারা দেশে মোট ৬১টি কেন্দ্রে পরীক্ষা হয়েছে। পরীক্ষার্থীদের অভিযোগ, বাইরের ফটকে রোল নম্বর টাঙানো থাকলেও অনেক কেন্দ্রে পরীক্ষার হলে আসনবিন্যাস ঠিকমতো ছিল না। যে যাঁর মতো বসেছেন। দুজনের ছোট বেঞ্চে বসতে হয়েছে চার থেকে ছয়জনকে। পরীক্ষা শুরুর নির্ধারিত সময়ের আধা ঘণ্টা পরও অনেক কেন্দ্রে প্রশ্নপত্র যায়নি। অনেক কেন্দ্রে ছাপা প্রশ্নপত্র এতটাই অস্পষ্ট ছিল যে তা পড়তে রীতিমতো গলদঘর্ম হতে হয়েছে পরীক্ষার্থীদের। পরীক্ষার কেন্দ্রে মুঠোফোন নিষিদ্ধ থাকলেও অধিকাংশ কেন্দ্রেই পরীক্ষার্থীরা তা নিয়ে ঢুকেছেন। পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণ পর থেকে ফেসবুকে চাকরিপ্রার্থীদের বিভিন্ন গ্রুপে পরীক্ষার অব্যবস্থাপনা নিয়ে ছবি আর ভিডিও আসা শুরু করে। গত বছর সোনালী, রূপালী ও জনতা ব্যাংকের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির ভিত্তিতে নিয়োগ পরীক্ষাসহ পরবর্তী কার্যক্রম পরিচালনা না করতে হাইকোর্ট নির্দেশ দিয়েছিলেন। গত বৃহস্পতিবার চেম্বার বিচারপতি সে আদেশ স্থগিত করেন। এই আদেশের ফলে ওই তিন ব্যাংকসহ আট ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের নিয়োগ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার (সাধারণ) ১ হাজার ৬৬৩টি শূন্য পদে ২ লাখ ১৩ হাজার ৫২৫ জন পরীক্ষার্থী আবেদন করেছিলেন। বিস্তারিত

ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ফোরলেন প্রকল্প দেশীয় অর্থায়নে হবে: অর্থমন্ত্রী

ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ফোরলেন প্রকল্প দেশীয় অর্থায়নে হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আব্দুল মুহিত। চীন প্রকল্পকে ব্ল্যাক লিস্টে রাখায় এখানে তারা অর্থ খরচ করবেনা। তাই আমাদের নিজস্ব অর্থায়নে বাস্তবায়ন করা হবে।

সোমবার (১৫ জানুয়ারি) শেরে বাংলা নগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।
সপ্তম পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনা ও টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার বাস্তবায়ন অগ্রগতির পর্যালোচনাকে সামনে রেখে ‘বাংলাদেশ উন্নয়ন ফোরাম-২০১৮’ উপলক্ষে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।
অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘দেশের নিজস্ব সম্পদ বাড়ছে। আমাদের নিজস্ব টাকায় পদ্মাসেতুর মতো প্রকল্প বাস্তবায়ন করছি। যেহুতু ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ফোর লেনে চীনা অর্থায়নে সমস্যা দেখা দিয়েছে, তাই আমাদের টাকায় এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।’
বর্তমানে মাথাপিছু আয় ১ হাজার ৬১০ ডলার। ১ হাজার ২৪০ ডলার যদি তিন বছর স্থায়ী হয় তবে বৈদেশিক ঋণ বাড়বে। সেই ক্ষেত্রে উন্নয়ন সহযোগীদের বাড়তি সুদ দিতে হবে। এই ঋণ পরিশোধে বাংলাদেশ সক্ষম কি? এমন প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘এক্সট্রা লোন, ইটস নট অ্যা বার্ডেন। প্রতিদিন বাংলাদেশের নিজস্ব সম্পদ বাড়ছে। নিজেদের টাকায় বাংলাদেশ পদ্মাসেতুসহ অনেক প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে।’
এতে উপস্থিত থাকবেন- ওপেক ফান্ড ফর ইন্টারন্যাশনাল ডেভেলপমেন্টের (ওএফআইডি) মহাপরিচালক সুলেইমান জাসির আল-হার্বিশ, বিশ্বব্যাংকের ভাইস প্রেসিডেন্ট এনেট ডিক্সন, এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের (এডিবি) ভাইস প্রেসিডেন্ট ওয়েনচাই জাং, জাপানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মহাপরিচালক মিনরু মাসুজিমা প্রমুখ। বিস্তারিত

সিপিডি দেশকে টেনে নিচে নামাতে চায় : অর্থমন্ত্রী

‘২০১৭ সাল দেশে ব্যাংক কেলেঙ্কারির বছর হিসেবে চিহ্নিত হয়ে থাকবে’-সম্প্রতি বেসরকারি গবেষণা সংস্থা সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) এমন মন্তব্যকে ‘রাবিশ’ বলে মন্তব্য করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

তিনি বলেন, সিপিডি বাংলাদেশকে টেনে নিচে নামানোর চেষ্টা করছে। তারা কখনো বাংলাদেশের উন্নয়ন চোখে দেখে না। শুধু নেতিবাচক দিকগুলো তুলে ধরায় ব্যস্ত।
রোববার দুপুরে সচিবালয়ে অর্থ মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকের সঙ্গে ইরা ইনফোটেক লিমিটেডের একটি চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে তিনি এ  কথা বলেন।
২০১৭-১৮ অর্থবছরের অর্থনৈতিক পরিস্থিতির পর্যালোচনা নিয়ে গত শনিবার সকালে রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলন করে সিপিডি তাদের এক প্রতিবেদন প্রকাশ করে।
এ সময় সিপিডির বিশেষ ফেলো ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেন, দেশে ব্যাংক কেলেঙ্কারির বছর হিসেবে ২০১৭ সাল চিহ্নিত হয়ে থাকবে। তিনি বলেন, চলতি বছরও ব্যাংক খাতের ঘটনাগুলোর কোনো নিরসন হবে বলে মনে হচ্ছে না। ব্যাংক খাতের পরিস্থিতি দিয়ে বোঝা যায়, সংস্কারের বিষয়ে সরকারের মনোভাব কী রকম ছিল।
বিস্তারিত

এস আলম স্টিলের ১০ শতাংশ লভ্যাংশ অনুমোদন

চট্টগ্রামভিত্তিক শিল্প প্রতিষ্ঠান এস আলম কোল্ড রোল্ড স্টিলস লিমিটেড ২০১৭ সমাপ্ত অর্থবছরে ১০ শতাংশ লভ্যাংশ অনুমোদন করেছে।

শুক্রবার সকালে চট্টগ্রামের রেডিসন ব্লু বেভিউর মেজবান হলে অনুষ্ঠিত প্রতিষ্ঠানের ১৭তম বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) এই লভ্যাংশ অনুমোদন করা হয়।
এস আলম কোল্ড রোল্ড স্টিলস লিমিটেডের চেয়ারম্যান আব্দুস সামাদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এই সাধারণ সভায় উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানের পরিচালক ওসমান গনি, আইসিবি নমিনি পরিচালক মোহাম্মদ শাহা জাহান, পরিচালক হালিমা বেগম, নন শেয়ার হোল্ডার ইন্ডিপেনডেন্ট পরিচালক মোহাম্মদ ইসহাক ও মনোতোষ চন্দ্র রায়, নির্বাহী পরিচালক (অর্থ) সুব্রত কুমার ভৌমিক, কোম্পানি সচিব গোলাম মোহাম্মদ, শিমুল নন্দী। এ ছাড়া কোম্পানির বিপুল সংখ্যক শেয়ার হোল্ডার এই সাধারণ সভায় অংশ নেন।
সভায় জানানো হয়, ৩০ জুন ২০১৭ সমাপ্ত বছরে কোম্পানির নিট বিক্রি ২ হাজার ৪৫১ মিলিয়ন টাকা। করপরবর্তী মুনাফা ১০৬ দশমিক ২ মিলিয়ন টাকা, ইপিএস ১ দশমিক ১১ টাকা। সার্বিক মুনাফা পর্যালোচনায় সর্বসম্মতিক্রমে কোম্পানির শেয়ার হোল্ডারদের জন্য ১০ শতাংশ লভ্যাংশ অনুমোদন করা হয়। বিস্তারিত

‘বন্ড সুবিধার অপব্যবহার রোধে আরো কঠোর হোন’

বন্ড সুবিধার অপব্যবহার রোধে আরো কঠোর হয়ে তৎপরতা বৃদ্ধির নির্দেশ দিয়েছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোঃ মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া এনডিসি।

একই সঙ্গে তিনি শুল্ক গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের সাহসিকতা ও সততার সঙ্গে চোরাচালান ও শুল্ক ফাঁকিবাজদের বিরুদ্ধে কার্যক্রম আরো জোরদার করার আহবান জানান তিনি।
বৃহস্পতিবার শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তর পরিদর্শনকালে কর্মকর্তাদের প্রতি তিনি এ আহ্বান জানিয়েছেন।
এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, ‘বিগত কয়েক বছরে শুল্ক গোয়েন্দার সাফল্যচিত্র যে কোন সরকারি দপ্তরের জন্য অনুকরণীয়। এ দপ্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ যে ধরনের সাহসিকতা, সততা এবং দেশপ্রেমের সঙ্গে তাদের উপর অর্পিত সরকারি দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন তা প্রশংসার দাবীদার। এ দপ্তরে কর্মরত সকলকে সব ধরনের লোভ ও ভয়-ভীতির ঊর্ধ্বে থেকে নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের নির্দেশ দেন।
এনবিআরের নতুন চেয়ারম্যান আরো বলেন, ‘শুল্ক গোয়েন্দারা ভালো কাজ করলে দেশ অপূরণীয় ক্ষতি থেকে রক্ষা পাবে। তিনি ভালো কাজের উপযুক্ত স্বীকৃতি দেবেন বলে আশ্বাস দেন। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে শুল্ক গোয়েন্দার চালানো বেশ কয়েকটি চাঞ্চল্যকর অভিযানের বিবরণ শুনে তিনি ভবিষ্যতে এ ধরনের বড় কোন অভিযান পরিচালনার সময় নিজেই উপস্থিত থাকার ইচ্ছা প্রকাশ করেন।
মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া বলেন, ‘শুল্ক গোয়েন্দারা সীমিত সুযোগ সুবিধা নিয়ে কাজ করছে। এই দপ্তরের জনবল বৃদ্ধি, রেশনিং, ঝুঁকি ভাতা ও অন্যান্য চাহিদার বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে বিবেচনা করবেন। টিমওয়ার্ক এবং পারষ্পরিক শ্রদ্ধা-ভক্তির মাধ্যমেই কোন একটি দপ্তর সাফল্যের স্বর্ণচূড়ায় আরোহন করতে পারে।
পরিদর্শনের এক পর্যায়ে পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন উপস্থাপন করেন শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. মইনুল খান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের শুল্ক ও ভ্যাট প্রশাসনের সদস্য মোঃ রেজাউল হাসান।
উপস্থাপনায় শুল্ক গোয়েন্দার সাম্প্রতিক সাফল্যের পরিসংখ্যান চিত্র তুলে ধরা হয়। গত কয়েক বছরে শুল্ক গোয়েন্দার কর্মতৎপরতার সচিত্র বর্ণনা বিশদভাবে উল্লেখ করা হয়। উপস্থাপনার পরে শুল্ক গোয়েন্দার কার্যক্রমের উপরে নির্মিত ‘গোয়েন্দার চোখ’ শিরোনামের একটি ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয়।
এনবিআর চেয়ারম্যান সভা শেষে অধিদপ্তরের পরিদর্শন বইতে লেখেন, ‘আজ প্রথমবারের মতো এনবিআর-এর আওতাধীন শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তর পরিদর্শন করে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে পরিচিত হলাম। তাদের কিছু সাফল্য এবং সাহসিকতাপূর্ণ কাজ দেখে আনন্দিত হয়েছি।’ দেশপ্রেম, নিষ্ঠা ও সততার সঙ্গে কাজ করার জন্য পরামর্শ দিয়েছি। এ অধিদপ্তরের উত্তরোত্তর সার্বিক সাফল্য কামনা করি।’ বিস্তারিত

রাজধানীতে স্মার্টফোন ও ট্যাব মেলা

দেশের স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট কম্পিউটার ব্যবহারকারীদের সর্বশেষ মডেলের ডিভাইস পরখ করে দেখার সুযোগ দিতে আজ সকাল ১০টা থেকে শুরু হয়েছে ‘টেকশহর ডটকম স্মার্টফোন এ্যান্ড ট্যাব এক্সপো ২০১৮’। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) তিনদিনব্যাপি এই মেলা চলবে ১৩ জানুয়ারি শনিবার পর্যন্ত।
  আজ বিকেল সাড়ে ৩টায় আনুষ্ঠানিকভাবে প্রধান অতিথি থেকে মেলার উদ্বোধন করেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।  এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন স্যামসাং মোবাইল বাংলাদেশের কান্ট্রি ম্যানেজার স্যাংওয়ান ইউন, ট্রানশান বাংলাদেশ লিমিটেডের সিইও রেজওয়ানুল হক, শাওমি বাংলাদেশের সিইও দেওয়ান কানন, আমরা কোম্পানিজের ম্যানেজিং ডিরেক্টর সৈয়দ ফারহাদ আহমেদ, হুয়াওয়ে টেকনোলজিস (বাংলাদেশ) লিমিটেডের ডেপুটি ডিরেক্টর (হুয়াওয়ে ডিভাইস বিজনেস ডিপার্টমেন্ট) জিয়া উদ্দীন, এলজি মোবাইল বাংলাদেশ এর পরিবেশক প্রতিষ্ঠান মেট্রোসেম টেকনোলজিস লিমিটেডের ম্যানেজিং ডিরেক্টর মো. শাহিদুল্লাহ, অপ্পো বাংলাদেশের মার্কেটিং ডিরেক্টর ব্রুস লি, এডিসন গ্রুপের ডিজিএম মার্কেটিং মো. আসাদুজ্জামান এবং এক্সপো মেকারের কৌশলগত পরিকল্পনাকারী মুহম্মদ খান। টেকশহর ডটকম স্মার্টফোন এ্যান্ড ট্যাব মেলা উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথি ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, আমরা হাঁটি হাঁটি পা পা করে এগিয়ে যাচ্ছি। ইন্টারনেট ব্যবহারের পাশাপাশি বাড়ছে দেশে ট্যাব ও স্মার্টফোন ব্যবহার। সব মিলিয়ে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, পৃথিবীর কোনো দেশ থেকে বাংলাদেশে পিছিনে নেই। এভাবে এগিয়ে যেতে থাকলে ২০৪১ সনে আমরা উন্নত দেশে পরিণত হবো।  তিনি আরো বলেন, আগামী বছর থেকে বেশি বেশি স্মার্টফোন ও ট্যাব মেলা দেশের বাহিরে বিভাগীয় শহরগুলোতেও আয়োজন করা হোক। সেখানেও সবাই স্মার্টফোন ও ট্যাব কিনতে যাবে এটাই আশা। দেশের মানুষের কাছে প্রযুক্তি পৌঁছালে কি হতে পারে সেটা আমরা গত ডিজিটাল ওয়ার্ল্ডে দেখেছি। এছাড়া দেশি মোবাইল ব্র্যান্ডগুলো ধীরে ধীরে উঠে আসছে। কেউ ফ্যাক্টরি করছে আবার অনেকে চেষ্টা করছে। দেশি মোবাইল কোম্পানি ব্র্যান্ড ভালো করছে এটাই প্রত্যাশা।  বিশেষ অতিথি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মাননীয় প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, এক সময় অনুষ্ঠানগুলোতে সব বিদেশি মোবাইল ব্র্যান্ড থাকত কিন্তু এখন দেশি ব্র্যান্ডগুলোও পাওয়া যায়, এটাই আমাদের অর্জন। আমরা এগিয়ে যাচ্ছি। স্মার্টফোন ও ট্যাব ইন্টারনেটের সঙ্গে জড়িত। যত ব্যবহার বাড়বে তত ফোনের ব্যবহারকারী বাড়বে। আর আমি মনে করি ডিজিটাল এই প্রযুক্তিপণ্য মানে ট্যাব ও স্মার্ট শিক্ষাগ্রহণের হাতিয়ার হয়ে দাঁড়িয়েছে। যত শিক্ষার হার বাড়বে, তত স্মার্টফোন ও ট্যাবের ব্যবহার বাড়বে।  দেশে স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট ক¤িপউটার নিয়ে এটিই সবচেয়ে বড় আয়োজন। অনুষ্ঠান ব্যবস্থাপনা প্রতিষ্ঠান এক্সপো মেকারের স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট নিয়ে এটি নবম আয়োজন। এবারের মেলায় বিশ্বখ্যাত সব ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট পাওয়া যাচ্ছে। অংশ নিয়েছে স্যামসাং, টেকনো, শাওমি, উই, হুয়াওয়ে, এলজি স্মার্টফোন, অপ্পো, সিম্ফনি, লাভা, নকিয়া, লেনোভো, আসুস জেনফোন, উইনম্যাক্স, মাইক্রোম্যাক্স, ডিসিএল, ডিটেল, এডাটা, কিকসা ডটকম, আজকের ডিল, মেঘনা ব্যাংক ট্যাপ এন পে, কুইক ফিক্স, বিজয় ডিজিটালসহ বিভিন্ন ব্র্যান্ড ও প্রতিষ্ঠান। এক্সপো মেকারের কৌশলগত পরিকল্পনাকারী মুহম্মদ খান জানান, প্রদর্শনী উপলক্ষে অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলো বিশেষ ছাড় ও উপহার দিচ্ছে। দর্শকরা প্রযুক্তির আধুনিক সব স্মার্ট ডিভাইস যাচাই বাছাই করে দেখতে ও কিনতে পারছেন। রয়েছে অন্যান্য অনেক আয়োজন। এবারের মেলার টাইটেল স্পন্সর দেশের আইসিটি ও টেলিকম বিষয়ক শীর্ষস্থানীয় নিউজ পোর্টাল টেকশহরডটকম। প্ল্যাটিনাম স্পন্সর স্যামসাং ও টেকনো মোবাইল। গোল্ড স্পন্সর শাওমি ও উই। সিলভার স্পন্সর হুয়াওয়ে, এলজি স্মার্ট ফোন, অপ্পো ও সিম্ফনি। পার্টনার হিসেবে রয়েছে এডুমেকার। মেলার টিকিট বুথ স্পন্সর কিকসা ডটকম। মেলা প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত চলবে। বিস্তারিত

রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে আশাবাদী অর্থমন্ত্রী

চলতি ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরের পাঁচ মাসে রাজস্ব আাদায়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন না হলেও আশা ছাড়েননি অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেছেন, পাঁচ মাসে রাজস্ব আদায় আশানুরুপ হয়নি, ঠিক। তবে আমি এখনো আশাবাদী। এ অবস্থার পরিবর্তন হবে। অর্থবছরের শেষের দিকে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জন হবে।

বুধবার সচিবালয়ে সরকারি ক্রয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি ও অর্থনৈতিক বিষয়-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী এসব কথা বলেন।
গত পাঁচ মাসে রাজস্ব আদায় ভালো না, আগামীতে লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে কি না- জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘কালেকশন ভালো না। আশা করি, এ অবস্থার পরিবর্তন হবে।’
রিভাইজ করার কোনো পরিকল্পনা আছে কি না, এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘নো’।
আপনি কি মনে করছেন, আগামী দিনগুলোতে লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে? এ প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, ‘ইয়েস। রিভিশন যখন করব তখন দেখব। চিন্তা করব, কী করা যায়? কিছু অ্যাডজাস্টমেন্ট হতে পারে। তবে আমূল পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা নেই।’
রাজস্ব আসছে না, কীভাবে আদায় করবেন, এ বিষয়ে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘আসবে, ওয়েট অ্যান্ড সি। বিকজ, আমার জাজমেন্ট হলো- পিপল আর উইলিং টু পে ট্যাক্সেস।’
চলতি অর্থবছরে গত জুলাই থেকে নভেম্বর পর্যন্ত প্রথম পাঁচ মাসে রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ৮ হাজার ৭৫৮ কোটি টাকা ঘাটতি হয়েছে। জুলাই থেকে নভেম্বর পর্যন্ত সরকারের রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৮৪ হাজার ৬৬ কোটি টাকা। কিন্তু আয়কর, মূল্য সংযোজন কর এবং শুল্ক- এ তিন খাত মিলিয়ে আয় ৭৫ হাজার ৩০৮ কোটি টাকা।
চলতি অর্থবছরে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের মাধ্যমে সরকারের রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা ২ লাখ ৪৮ হাজার ১৯০ কোটি টাকা। যা আগের বছরের চেয়ে ৩০ শতাংশ বেশি। বিস্তারিত

প্রতি ভরি সোনা ৫০ হাজার টাকার উপরে

ঢাকা: সোনার দাম আবারও বেড়ে প্রতি ভরি ৫০ হাজার টাকা ছাড়িয়ে গেছে। বুধবার থেকে প্রতি ভরি ২২ ক্যারেট সোনা ৫০ হাজার ৭৩৮ টাকায় বিক্রির সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি।
 জুয়েলার্স সমিতি আজ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি জানায়। সমিতির সাধারণ সম্পাদক দিলীপ কুমার আগরওয়ালা জানিয়েছেন, বিয়ের মওসুমে স্থানীয় বাজারে সরবরাহের তুলনায় চাহিদা বেশি থাকায় সোনার দাম বাড়ানো হয়েছে।  সর্বশেষ গত ২৫ ডিসেম্বর সোনার দর ভরিতে ১ হাজার ৪০০ টাকা পর্যন্ত বাড়িয়েছিল সমিতি। 
বিস্তারিত

একনেকে ১৩ প্রকল্প অনুমোদন

জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় ১৩টি প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এসব প্রকল্পে ব্যয় হবে ১২ হাজার ৪১৫ কোটি ৭৯ লাখ টাকা।

মঙ্গলবার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে এনইসি সম্মেলন কক্ষে একনেক চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সভায় প্রকল্পগুলোর অনুমোদন দেওয়া হয়।
একনেক সভা শেষে বিকেল ৪টায় প্রকল্পগুলো নিয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।
পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, আজকের উপস্থাপিত ১৩টি (নতুন ও সংশোধিত) প্রকল্পে সরকারি অর্থায়ন ১১ হাজার ৮২২ কোটি ৮২ লাখ টাকা এবং প্রকল্প সাহায্য ৫৯২ কোটি ৯৭ লাখ টাকা।
তিনি আরো বলেন, আপনারা সবাই দেখছেন, আগের থেকে প্রকল্প অনুমোদন বেশি দেওয়া হচ্ছে। আগের থেকে উন্নয়নের ধারা আরো বেশি করে বজায় রাখার জন্যই বেশি বেশি প্রকল্প হাতে নিচ্ছে সরকার। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন যেসব এলাকা অনুন্নত সেসব এলাকায় উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নিতে। সেজন্য আমরা সেসব এলাকা চিহ্নিত করে প্রকল্প হাতে নিচ্ছি বলেই এখন প্রকল্পের পরিমাণ বেশি হচ্ছে।
এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন পরিকল্পনা সচিব জিয়াউল ইসলাম, সাধারণ অর্থনৈতিক বিভাগের সদস্য ড. শামসুল ইসলাম প্রমুখ।
বিস্তারিত

ট্রাভেল এজেন্সির নিবন্ধন ও নবায়ন অনলাইনে

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় থেকে নিবন্ধিত ও নিয়ন্ত্রিত ট্রাভেল এজেন্সিসমূহের নিবন্ধন ও নবায়ন কার্যক্রম অনলাইনে গত ১ জানুয়ারি শুরু হয়েছে।

সোমবার সরকারি এক তথ্য বিবরণীতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।
তথ্য বিবরণীতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ ট্রাভেল এজেন্সি (নিবন্ধন ও নিয়ন্ত্রণ) আইন এবং বাংলাদেশ ট্রাভেল এজেন্সি (নিবন্ধন ও নিয়ন্ত্রণ) বিধিমালার আওতায় পূর্ব থেকে নিবন্ধিত এবং নতুন হিসেবে নিবন্ধনের জন্য মন্ত্রণালয়ের সাথে সকল যোগাযোগ অনলাইনে সম্পন্ন করা হবে।
নতুন হিসেবে নিবন্ধন ও নিবন্ধনকৃত ট্রাভেল এজেন্সিসমূহের নিবন্ধন ও নবায়নসহ যাবতীয় যোগাযোগের জন্য www.regtravelagency.gov.bd-তে লগইনের মাধ্যমে আবেদনসহ সকল বিষয়ে যোগাযোগ করতে হবে।
প্রসঙ্গত, এখন থেকে অনলাইন ব্যতীত সরাসরি বা ডাকযোগে অথবা ই-মেইলে প্রাপ্ত কোনো আবেদন গৃহীত হবে না। অনলাইনে নিবন্ধনকৃত নতুন ট্রাভেল এজেন্সির নিবন্ধন নম্বর ১২০০০ থেকে শুরু হবে।


বিস্তারিত

বিদ্যুতের বাড়তি দাম বাতিল না হলে আইনি ব্যবস্থা: ক্যাব

বিদ্যুতের সর্বশেষ মূল্যবৃদ্ধির আদেশকে অন্যায় ও অযৌক্তিক আখ্যা দিয়ে এ আদেশ বাতিলের দাবি জানিয়েছে কনজুমারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ ( ক্যাব)।

রোববার (৭ জানুয়ারি) সকালে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানানো হয়।
এছাড়া গ্রাহক পর্যায়ে ইউনিট প্রতি বিদ্যুতের বর্ধিত দাম ১০ দিনের মধ্যে প্রত্যাহার করা না হলে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিইআরসির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার ইঙ্গিত দিয়েছে সংগঠনটি
সংবাদ সম্মেলনে ক্যাবের চেয়ারম্যান গোলাম রহমান সাংবাদিকদের বলেন, বিদ্যুতের মূল্য নির্ধারণে বিইআরসির গণশুনাতিতে মূল্য কমানোর প্রস্তাব উপেক্ষিত হয়েছে এবং মূল্যবৃদ্ধির আদেশ গণশুনানিভিত্তিক হয়নি।
তিনি আরো বলেন, সরকার ও বিইআরসির কাছে আমাদের আবেদন, অবিলম্বে মূল্যবৃদ্ধির আদেশ বাতিল করা হোক। একইসাথে ক্যাবের প্রস্তাব অনুযায়ী, মূল্য হ্রাস করা হোক। এজন্য তাদেরকে সময় দিচ্ছি, ৮-১০ দিনের মধ্যে যদি কোনো ব্যবস্থা সরকার না করে তাহলে আমরা ভোক্তাদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় আইনানুগ প্রক্রিয়া গ্রহণ করব।
উল্লেখ্য, গত ২৩ নভেম্বর বিইআরসি প্রতি ইউনিট বিদ্যুতের দাম গড়ে ৩৫ পয়সা বা ৫ দশমিক ৩ শতাংশ বাড়িয়েছে। এই বর্ধিত দাম ডিসেম্বর থেকে কার্যকর হয়েছে। বিস্তারিত

‘২০১৯ সালের মধ্যেই জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮ শতাংশে উন্নীত সম্ভব’

পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, উৎপাদনশীলতা ও দক্ষতা বাড়ানো গেলে ২০১৯ সালের মধ্যেই জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮ শতাংশে নিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরের এনইসি সম্মেলন কক্ষে পরিকল্পনা বিভাগের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত ‘রিবেজিং অ্যান্ড রিভিশন অব জিডিপি : বাংলাদেশ পারসপেকটিভ’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি এসব কথা বলেন।
মুস্তফা কামাল বলেন, বিনিয়োগ না বাড়িয়েও প্রবৃদ্ধি বাড়ানো যায়। এক্ষেত্রে উৎপাদনশীলতা বাড়াতে হবে। দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য শিক্ষাক্ষেত্রে ব্যাপক পরিবর্তন আনতে হবে। বিনিয়োগ না বাড়িয়েও উৎপাদনশীলতা বাড়ানোর কারণে প্রবৃদ্ধি বেড়েছে। তবে কাঙ্ক্ষিত প্রবৃদ্ধি অর্জন করতে হলে শিক্ষাব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন আনতে হবে। রোবোটিকস ও প্রযুক্তি বিষয়ে পড়াশুনার ওপর গুরুত্ব দিয়ে ক্ষেত্র বাড়াতে হবে।
মন্ত্রী আরো বলেন, জিডিপির ভিত্তিবছর পরিবর্তন প্রয়োজন। কেননা, এখন প্রযুক্তি, ই-কর্মাস, মোবাইল ব্যাংকিংসহ বিভিন্ন নতুন বিষয় অর্থনীতিতে যোগ হয়েছে। জিডিপির হিসাবে এ বিষয়গুলো অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।
পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, পেঁয়াজ হতে সাবধান। চার-পাঁচ বছর আগে দিল্লিতে পেঁয়াজের কারণে সরকার পরিবর্তন হয়েছিল। পেঁয়াজ খুব তেজস্ক্রিয়। সম্প্রতি এক গবেষণায় বলা হয়েছে চাল এবং পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধির কারণে সম্প্রতি ৫ লাখ মানুষ নতুন করে দারিদ্র্যসীমার নিচে চলে গেছে।
পরিকল্পনা বিভাগের সচিব মো. জিয়াউল ইসলামের সভাপতিত্বে সেমিনারে আরো উপস্থিত ছিলেন- সাধারণ অর্থনীতি বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব ড. শামসুল আলম, তত্বাবধায়ক সরকারের প্রাক্তন উপদেষ্টা ড. মির্জা মোহাম্মদ আজিজুল ইসলাম প্রমুখ। বিস্তারিত

এবি ব্যাংকের ঊর্ধ্বতন পাঁচ কর্মকর্তাকে দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ

২০ মিলিয়ন ডলার বিদেশে পাচারের অভিযোগ অনুসন্ধানে এবি ব্যাংকের পাঁচ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

মঙ্গলবার (২ জানুয়ারি) দুদকের প্রধান কার্যালয়ে সকাল সাড়ে ৯টা থেকে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করছেন দুদক পরিচালক সৈয়দ ইকবাল হোসেন এবং সহকারী পরিচালক গুলশান আনোয়ার প্রধান। দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
আজ যে পাঁচ কর্মকর্তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে তারা হলেন- ব্যাংকটির হেড অব কর্পোরেট মাহফুজ উল ইসলাম, হেড অব অফশোর ব্যাংকিং ইউনিট (ওবিইউ) মোহাম্মদ লোকমান, ওবিইউর কর্মকর্তা মো. আরিফ নেয়াজ, ব্যাংক কোম্পানি সেক্রেটারি মহাদেব সরকার সুমন ও প্রধান কার্যালয়ের কর্মকর্তা এম. এন. আজিম।
গত ২৬ ডিসেম্বর দুদকের নোটিশে তাদের তলব করা হয়েছিল। একই অভিযোগে গত ২৮ ও ৩১ ডিসেম্বর ব্যাংকটির প্রাক্তন চেয়ারম্যান এম ওয়াহিদুল হক ও প্রাক্তন দুই ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ চার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক। জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তারা সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।
এদিকে ব্যাংকটির ১২ জন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার ওপর বিদেশ ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। সংযুক্ত আরব আমিরাতে ২০ মিলিয়ন ডলার পাচারের অভিযোগের সঙ্গে এসব কর্মকর্তার সংশ্লিষ্টতার প্রাথমিক তথ্য-প্রমাণ পাওয়ায় ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষের কাছে চিঠি দেয় দুদক।
অভিযোগের বিষয়ে দুদক সূত্রে জানা যায়, পিজিএফ নামে দুবাইভিত্তিক একটি কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করে ২০ মিলিয়ন ডলার ঋণ হিসেবে দেওয়ার কথা বললেও, ওই কোম্পানির কোনো কর্মকর্তাদের নাম বা পরিচয় কাগজপত্রে দেখাতে পারেনি এবি ব্যাংক কর্তৃপক্ষ। বরং ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ওই টাকা ব্যক্তিগত হিসাবে স্থানান্তর করেছে। তিন কিস্তিতে ওই টাকা দুবাই যাওয়ার পর ব্যাংক হিসাব বন্ধ করে দেয় প্রতারক চক্র। যার কোনো তথ্য এবি ব্যাংকের কাছে নেই।
ঋণ প্রদানের ক্ষেত্রে খুররাম ও আবদুস সামাদ নামে দুই ব্যক্তি মধ্যস্থতাকারী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন বলে দুদকের অনুসন্ধানে বেরিয়ে এসেছে। এ ছাড়া দুদক ব্যাংকটির চেয়ারম্যান ও ঊর্ধ্বতন কয়েকজন কর্মকর্তার একাধিকবার দুবাই যাতায়াতের প্রমাণ পেয়েছে।
গত ২১ ডিসেম্বর এবি ব্যাংকের প্রাক্তন চেয়ারম্যান এম ওয়াহিদুল হক, ভাইস চেয়ারম্যান সেলিম আহমেদ ও পরিচালক ব্যারিস্টার ফাহিমুল হক পদত্যাগ করেন। রাজধানীর লা মেরিডিয়ান হোটেলে ব্যাংকটির বার্ষিক সাধারণ সভায় (এজিএম) তারা পদত্যাগ করেন। বিস্তারিত

‘২০১৮ সাল দেশ-জনগণের জন্য শুভ বার্তা বয়ে আনবে’

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, আগামী ২০১৮ সাল দেশ ও জনগণের জন্য শুভ বার্তা বয়ে আনবে। নতুন বছরে জনগণের ওপর নতুন করে আর কোনো কর আরোপ করা হবে না। জনগণের ভোগান্তি লাঘবের জন্য সব ধরনের প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

রোববার সচিবালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে বিদায়ী ২০১৭ সালের অভিজ্ঞতা এবং দেশের বিভিন্ন দিক তুলে ধরতে গিয়ে অর্থমন্ত্রী এসব কথা বলেন।
অর্থমন্ত্রী বলেন, আজ ২০১৭ সালের শেষ দিন। বছরের শেষে এসে বলতে পারি, দেশ ও জনগণ ভালো ছিল। কারণ, এ সময় কোনো হরতাল আর জ্বালাও-পোড়াও ছিল না।
আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, চলতি অর্থবছর অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ৭ দশমিক ২ ধরা হয়েছে। তবে পরিকল্পনামন্ত্রী আশা করছেন, এটা ৭ দশমিক ৫ হতে পারে। গত বছর প্রকল্প বাস্তবায়ন কিছুটা মন্থর ছিল। তবে ক্যালেন্ডার ইয়ার অনুযায়ী যদি বলি, তা হলে গত বছরের চেয়ে প্রবৃদ্ধি ভালো হবে।
তিনি আরো বলেন, মানুষের স্বস্তি অনেক উচ্চ মাত্রায় আছে। দারিদ্র্য একেবারে দূর করা এত তাড়াতাড়ি সম্ভব  নয়। তবে দারিদ্র্যের হার কমিয়ে আনা গেছে। আর এটা সম্ভব হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের আন্তরিকতায়। আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করার পর থেকেই দারিদ্র্য বিমোচনের ওপর জোর দিয়ে আসছে। এজন্য সামাজিক নিরাপত্তাবেষ্টনির আওতায় নানা কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। যা আগে কোনো দিন হয়নি।
অর্থমন্ত্রী বলেন, রাজস্ব আদায় বাড়ছে। তবে তা আশাব্যঞ্জক নয়। রাজস্ব আদায়ে প্রবৃদ্ধি যা আশা করা হয়েছিল, তা হয়নি। হয়তো এটা উচ্চাশা ছিল। তবু অনেকটা উন্নতি হয়েছে। বিগত দুই বছরের চেয়ে ভালো হলেও আমার প্রত্যাশা ছিল আরো বেশি। আমি চেয়েছিলাম ২৫-২০ শতাংশ। এটা যদিও বেশি, তবে এটা চাওয়ার পেছনে কারণও ছিল। যারা আয়কর দেন তাদের বেশিরভাগের বয়সই ৪০ এর নিচে। যুব সম্প্রদায় আয়কর প্রদানে অত্যন্ত সচেতন। তারা মনে করে, এটা তাদের দায়িত্ব। এই দায়িত্ববোধ সবার মধ্যে জাগ্রত হলে আমাদের রাজস্ব আদায়ের হার আরো বেড়ে যাবে।
তিনি বলেন, দিন দিন করদাতার সংখ্যা বাড়ছে। তবে আদায়ের হার আশানুরূপ বাড়ছে না। আমি আশা করছি, আগামী ২০২১ সালের মধ্যে আয়কর মূল্য সংযোজন করের কাছাকাছি চলে আসবে। ২০২০ সাল পর্যন্ত নতুন মূল্য সংযোজন কর কার্যকর করছি না। এটা কার্যকর হলে এ খাতে আয় আরো বাড়বে। বর্তমান মূল্য সংযোজন করের তিনটি স্ল্যাব থেকেই বেশিরভাগ কর আদায় হচ্ছে। এগুলো ৪, ৫ এবং ৭ দশমিক ৫ শতাংশ। ১৫ শতাংশ মূল্য সংযোজন কর খুব কম আদায হয়। যা আইএমএফের শর্ত ছিল। এসব বিবেচনায় আর একটি স্ল্যাব বসানোর চিন্তা করা হচ্ছে। এটা কত হবে তা এখনই বলা সম্ভব নয়।
অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, ২০১৮ সাল হবে একটি ভালো বছর। স্বস্তির বছর। আগামী বাজেট হবে গতানুগতিক। নতুন কোনো ট্যাক্স আরোপ করা হবে না।
নতুন বছরে ব্যাংকিং খাতে আস্থার সংকট হবে কি না, জানতে চাইলে তিনি বলেন, ব্যাংক খাতে কোনো ঝুঁকি নেই। ব্যাংক ফেল করার কোনো চান্স নেই। সুতারাং আস্থার সংকট হবে না।
রোহিঙ্গা ইস্যুতে অর্থমন্ত্রী বলেন, রোহিঙ্গাদের জন্য একটি পরিকল্পনা করা হচ্ছে। সেখানে বিদেশি এবং সরকারি-বেসরকারিভাবে সাহায্য করা হচ্ছে। তাদের (রোহিঙ্গা) টাকা দিতে হবে। দাতাদের কাছে সাহায্য চাচ্ছি, দেখি কী আসে।
তিনি বলেন, মিয়ানমার বলেছে, তারা কিছু লোক নেবে। নেওয়ার মধ্যে নানা কথা-বার্তা আছে, কিছু হিন্দু নেবে।
এ সময় রোহিঙ্গা ইস্যুর সমাধানে রাখাইনে স্বতন্ত্র রোহিঙ্গা জোন করা প্রয়োজন বলে জানান তিনি।
অর্থমন্ত্রী বলেন, ২০১৭ সালে কোনো সহিংস হরতাল হয়নি। কোনো মারাত্মক কিছু ঘটেনি। মানুষের স্বস্তি অনেক উচ্চ মাত্রায় উঠে এসেছে। সোস্যাল সিকিউরিটি খুবই ভালো।
চালের দাম নিয়ে প্রশ্নের জবাবে আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, এটা ব্যবসায়ীদের কারণে হয়েছে। এটা হওয়া উচিত না। আমরা চেয়েছিলাম, চালের দাম একটু বাড়ুক। যেন কৃষক দাম কিছুটা বেশি পায়। ৩৮ থেকে ৪০ টাকার মধ্যে থাকা উচিত ছিল। ব্যবসায়ীরা সেটা ৬০ পর্যন্ত নিয়ে গেছে।
তবে এক্ষেত্রে সরকারের কোনো গাফিলতি নেই বলে মনে করেন অর্থমন্ত্রী। তবে দাম শিগগিরই নেমে আসবে বলে জানান তিনি।
২০১৪ সালে অনুষ্ঠিত জাতীয় নির্বাচনে নির্বাচনে বিএনপি অংশগ্রহণ করেনি। ১৫৪টি আসনে বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় একতরফা জয় পায় আওয়ামী লীগ। এ কারণে বড় অংশের ভোটার ভোট দিতে পারেনি। আগামী জাতীয় নির্বাচনে এ ধরনের ঘটনার পুনারাবৃত্তি হতে পারে কি না? এমন প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, একতরফা তো আমরা করিনি। একটা ইডিয়ট পার্টি (বিএনপি) করেছে। টোটালি ইডিয়ট পার্টি। আমরা তো তাদের আমন্ত্রণ জানিয়েছি, তোমরা অন্তর্বর্তী সরকারের আসো। তাদের স্টুপিড লিডাররাই তো এটা করেছে। এবার আর করবে না। নির্বাচনে না আসার কোনো কারণ দেখছি না। এবারের নির্বাচনে অংশ না নিলে তাদের দল বিলীন হয়ে যাবে।
অর্থমন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনার সব সরকারই অংশগ্রহণমূলক সরকার। আগামীতেও হবে। আশা করি, ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে জাতীয় নির্বাচনে সবাই অংশ নেবে এবং উন্নয়নের সরকারের জন্য আওয়ামী লীগ জিতবে।
সম্প্রতি সরকারি কর্মচারীদের চাকরির বয়স ৬২ করার জন্য প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিয়েছেন অর্থমন্ত্রী। এ বিষয়ে জানতে চাইলে আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, হ্যাঁ, আমি চিঠি দিয়েছি। এখনো কোনো সিগন্যাল পাইনি। বর্তমানে মানুষের জীবনসীমা ৭১ বছর। ১৯৭২ সালের জীবনসীমা ছিল মাত্র ৪৮ বছর। তখন বঙ্গবন্ধু ৫৮ করেছিলেন।
বৈঠকে আর্থিক খাতের বিভিন্ন অনিয়ম নিয়েও তিনি কথা বলেন। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আর্থিক খাতে বেশকিছু সংস্কার হচ্ছে। আশা করছি, সেগুলো সম্পন্ন হলে সবকিছু ঠিক হয়ে যাবে।
বিস্তারিত

আজ প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিবের দায়িত্ব নিচ্ছেন নজিবুর রহমান

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব হিসাবে আজ রোববার দায়িত্ব নিচ্ছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান ও অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিবের দায়িত্ব পালন করে আসা মো. নজিবুর রহমান।

সংশ্লিষ্ট একটি দায়িত্বশীল সূত্র জানায়, আজ রোববার সকালে এনবিআর-এ শেষ অফিস করবেন নজিবুর রহমান। এরপর তিনি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে যাবেন। সূত্র জানায়, আজ ৩১ ডিসেম্বর জনাব নজিবুর রহমানের জন্মদিন। জন্মদিনেই তিনি প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব হিসাবে দায়িত্ব নিচ্ছেন। সূত্র মতে, মুখ্য সচিবের প্রজ্ঞাপন আজ সকাল ৯টায় জারি হবে।
নজিবুর রহমান এই দায়িত্বে কামাল আবদুল নাসের চৌধুরীর স্থলাভিষিক্ত হচ্ছেন, যার চুক্তির মেয়াদ আগামী ৩১ ডিসেম্বর শেষ হচ্ছে।
মুখ্য সচিবের পদটি মন্ত্রিপরিষদ সচিবের সমান মর্যাদার। ওয়ারেন্ট অব প্রিসিডেন্স অনুযায়ী তারা একই পদ মর্যাদার হলেও ক্রম অনুযায়ী মন্ত্রিপরিষদ সচিবের পরে মুখ‌্য সচিবের নামটি থাকে। একই পদমর্যাদার হলেও সেনা, নৌ ও বিমানবাহিনী প্রধানের নাম থাকে তাদের পরে।
১৯৮২ নিয়মিত ব্যাচের প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তা নজিবুর রহমান অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগে আসার আগে পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয় এবং পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের সচিব এবং পরিবেশ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের দায়িত্বে ছিলেন।
নজিবুর রহমানের গ্রামের বাড়ি সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার গণেশপুর গ্রামে। বিস্তারিত

বন্ধ ১৩ টেক্সটাইল মিল চালুর উদ্যোগ

বাংলাদেশ টেক্সটাইল মিলস করপোরেশনের (বিটিএমসি) বন্ধ ১৩টি মিল চালু করার উদ্যোগ নিয়েছে সরকার।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০১৪ সালের ১২ অক্টোবর বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় পরিদর্শনকালে বিটিএমসির বন্ধ মিলগুলো চালু করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে মিলগুলো পাবলিক প্রাইভেট পার্টনাশিপের (পিপিপি) মাধ্যমে চালুর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।
সম্প্রতি অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উচ্চ পর্যায়ের এক বৈঠকে এ সংক্রান্ত একটি প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।
সূত্র জানায়, বিটিএমসির নিয়ন্ত্রণাধীন বন্ধ ১৩টি মিলের ভূমির পরিমাণ ৩৮০ দশমিক ৪৭ একর, যার আনুমানিক মূল্য প্রায় ১ হাজার ৫৯২ কোটি টাকা। মিলগুলো পিপিপির মাধ্যমে চালু করতে প্রয়োজন হবে প্রায় ১৫ হাজার ২০০ কোটি টাকা। বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় মনে করছে, এসব মিল চালু করতে সরকারি কোষাগার থেকে অর্থ যোগ দেওয়া সম্ভব না হলেও পিপিপির মাধ্যমে মিলগুলো চালু করা সম্ভব।
সূত্র জানায়, বন্ধ থাকা মিলগুলোর মধ্যে রয়েছে- চট্টগ্রামের আর আর টেক্সটাইল মিল। এ মিল ১৮ দশমিক ৯৫ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৩০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ৬০০ কোটি টাকা।
চট্টগ্রামের আমিন টেক্সটাইল মিল ২৩ দশমিক ৪৯ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। যার আনুমানিক মূল্য ৩১০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ১ হাজার ২০০ কোটি টাকা।
রাঙ্গামাটি টেক্সটাইল মিলটি ২৬ দশমিক ২৪ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। যার আনুমানিক মূল্য ২০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ১ হাজার ২০০ কোটি টাকা।
মাগুরা টেক্সটাইল মিলটি ১৬ দশমিক ১৭ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। যার আনুমানিক মূল্য ৩১০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ৬০০ কোটি টাকা।
যশোরের নওয়াপাড়া টেক্সটাইল মিলটি ১৫ দশমিক ৯২ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ২৮ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ৬০০ কোটি টাকা।
রাজশাহী টেক্সটাইল মিলটি ২৬ দশমিক ৫৩ একর জমির ওপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৭৩ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ১ হাজার ২০০ কোটি টাকা।
সাতক্ষীরার সুন্দরবন টেক্সটাইল মিলটি ২৯ দশমিক ৪৭ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। যার আনুমানিক মূল্য ৩০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ১ হাজার ২০০ কোটি টাকা।
দিনাজপুর টেক্সটাইল মিলটি ৩৫ দশমিক ৪৫ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৩০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ২ হাজার কোটি টাকা।
দিনাজপুরের জলিল টেক্সটাইল মিল ৬৮ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৩৬৫ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ২ হাজার কোটি টাকা।
নিলফামারীর দারোয়ানী টেক্সটাইল মিলটি ৬৮ দশমিক ৩০ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ২০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ২ হাজার কোটি টাকা।
ফেনীর রানীরহাটের দোস্ত টেক্সটাইল মিলটি ২১ দশমিক ৪৭ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৩০ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ১ হাজার ২০০ কোটি টাকা।
সাভারের আফসার কটন মিলটি ৫ দশমিক ৫২ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ৯১ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে ব্যয় হবে ২০০ কোটি টাকা।
চট্টগ্রামের এশিয়াটিক কটন মিলটি ২৪ দশমিক ৯৬ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত। এর আনুমানিক মূল্য ২৫৫ কোটি টাকা। মিলটি চালু করতে প্রযোজন হবে ২৫৫ কোটি টাকা।
বন্ধ মিলগুলো পিপিপির মাধ্যমে চালু করার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হওয়ায় এখন মন্ত্রণালয় বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে কথা বলে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেবে।
সূত্র জানায়, মিলগুলো বন্ধ থাকায় একদিকে মূল্যবান যন্ত্রপাতি নষ্ট হচ্ছে, অন্যদিকে এসব দেখভাল করার জন্য প্রতিবছর মন্ত্রণালয়কে অর্থ ব্যয় করতে হচ্ছে। মিলগুলো চালু হলে তাতে বিপুল কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে। একই সঙ্গে জাতীয় অর্থনীতিতে ভূমিকা রাখতে পারবে। বিস্তারিত

সবজির দাম কমেছে

গত সপ্তাহের তুলনায় অধিকাংশ সবজির দাম ১০ থেকে ১৫ টাকা কমেছে।শীতের সবজি পর্যাপ্ত পরিমাণে থাকায় দাম কিছুটা কমেছে। বেগুন ১৫ টাকা কমে ৩০ টাকা, কাঁচামরিচ ৬০ টাকা, পেঁপে ২০ টাকা, শিম ২৫ টাকা, দেশি টমেটো ৬০ টাকা ও আমদানি করা টমেটো ৮০ টাকা, গাজর ৪০ টাকা, শসা ৩০-৪০ টাকা, মূলা ১৫ টাকা, আলু ২০ টাকা, প্রতি পিস বাঁধাকপি ২০ টাকা, প্রতি পিস ফুলকপি ২০ টাকা, বরবটি ৫০ টাকা, চিচিঙ্গা ৩৫ টাকা, শশা ৩৫ টাকা, পেঁয়াজ পাতা এক আঁটি ১০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। এ ছাড়া এক আঁটি লাল শাক ১৫ টাকা ও ধনিয়াপাতা ১০০ টাকা।
প্রতি কেজি গরুর মাংস ৫০০ টাকা, খাসির মাংস ৭০০ থেকে ৭৫০ টাকা, ব্রয়লার মুরগি ১৩৫ টাকা, লেয়ার মুরগি প্রতি পিস আকারভেদে ১৫০ থেকে ২২০ টাকা ও পাকিস্তানি মুরগি ২৫০ থেকে ৩০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। বিস্তারিত

‘বাংলাদেশ ব্যাংক ঘেরাও ছেলেখেলার মতো আচরণ’

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, ‘ব্যাংকিং খাত নিয়ন্ত্রণে দুর্বলতা রয়েছে। এ বিষয়ে নিয়ন্ত্রণকারী প্রতিষ্ঠান নিয়ে প্রশ্ন উঠতে পারে। তাই বলে বাংলাদেশ ব্যাংক ঘেরাও করা ছেলেখেলার মতো আচরণ।’

বুধবার সচিবালয়ে সরকারি ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ সব কথা বলেন।
বাম মোর্চার প্রধান সমন্বয়ক সাইফুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সমাবেশের আয়োজন করে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) ও বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ)।
তিনি বলেন, ‘বাম দলগুলোর দুই/চার জন নেতা ছাড়া কিছু নেই। তারা কিছুই করতে পারে না। তাদের বাঁচতে হয়। এ জন্যই এসব করা। তারা যেটা করেছে এটা ননসেন্স।’
বুধবার ব্যাংক সেক্টর এবং আর্থিক খাতে অরাজকতা ও নৈরাজ্যের প্রতিবাদে সারা দেশে বাংলাদেশ ব্যাংকের শাখা ও ঢাকায় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সদর দপ্তর অভিমুখী বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে বাম সংগঠনগুলো। এর আগে বুধবার (২৭ ডিসেম্বের) দুপুর ১২টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে একটি সংক্ষিপ্ত বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
বিস্তারিত

চট্টগ্রামে ইউসিবি’র ১৭৬তম শাখা

চট্টগ্রাম: চট্টগ্রামের আনোয়ারা সদরে আজ ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেডের (ইউসিবি) ১৭৬তম শাখার উদ্বোধন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসাবে উক্ত শাখার উদ্বোধন করেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় ভূমি প্রতিমন্ত্রী জনাব সাইফুজ্জামান চৌধুরী এমপি।
              অন্যান্যদের মধ্যে ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক লিমিটেডের অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মোহাম্মদ শওকত জামিল, অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক জনাব মোঃ আব্দুল জব্বার চৌধুরীসহ ব্যাংকের বিভিন্ন উর্দ্ধতন কর্মকর্তাগন এবং স্থানীয় সুধীবৃন্দ উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।             অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি জনাব সাইফুজ্জামান চৌধুরী এমপি তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন, ‘সময়ের পরিবর্তনে গ্রাহক চাহিদা এবং ব্যাংকিং পরিষেবার ক্ষেত্রে এসেছে বহুমুখী বৈচিত্র্য; আর এই পরিবর্তনের সাথে সমন্বয় রেখেই সর্বোত্তম সেবা দিয়ে চলেছে ইউসিবি।’     
বিস্তারিত

  • সিলেটে মিডল্যান্ড ব্যাংক
  • রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারের প্রতিশ্রুতি ধোঁকাবাজি: আরসা
  • মাংস এবং উচ্চ ক্যালোরিযুক্ত পানীয় ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ায়
  • ইনস্টাগ্রামের নয়া ফিচার, দেখেছেন কি?
  • প্রকাশ্যে চুমু, ‘দেশি গার্ল’-এর বিদেশি রোম্যান্স
  • নেতানিয়াহুর সঙ্গে সাক্ষাতে অস্বীকৃতি তিন খানের
  • ১০৫ রানেই শেষ পাকিস্তানের ইনিংস!
  • আইপিএলে এলিট তালিকায় সাকিব
  • নেতাকর্মীদের জেলে রেখে নির্বাচন হবে না: ফখরুল
  • সুনির্দিষ্ট অভিযোগে ভিত্তিতেই গ্রেফতার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
  • রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন হচ্ছে না কাল
  • সিলেটের দক্ষিন সুরমায় বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ৪
  • সোবহানীঘাটে আবাসিক হোটেল থেকে প্রেমিক-প্রেমিকার লাশ উদ্ধার
  • মন্ত্রণালয়ের দুই কর্মকর্তাসহ নিখোঁজ তিনজন গ্রেফতার
  • যুবলীগের বিভাগীয় প্রতিনিধি সমাবেশে অর্থমন্ত্রীকে নিমন্ত্রণ
  • গোয়াইনঘাট থানার আসামী উপশহরে গ্রেফতার
  • হবিগঞ্জে জমির আইল কাটা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৪০
  • সিলেট জেলা বিএনপির আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত
  • কোম্পানীগঞ্জে পরীক্ষার্থীকে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন॥
  • দক্ষিণ সুরমায় সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার
  • মুসলমানরাই সবচেয়ে বেশি সন্ত্রাসের শিকার: বান কি মুন   ৫০৬২৬
  • মেয়র কালামের পায়ের নিচে ওসি আতাউর শার্ট খুলে লিনডাউন,তারপর জুতো পেটার প্রস্তাব   ১৪৬৯৫
  • ছলনাময়ী নারীদের চেনার উপায়   ১৩৭২০
  • জুমার নামাজ ছুটে গেলে কী করবেন?   ১১৬৩৭
  • ​চিনা কোম্পানিকে কাজ দিতে প্রতিমন্ত্রী তারানার স্বাক্ষর জাল   ৯৩৪৪
  • ঋণখেলাপি নই-হুন্ডি ব্যবসায়িও নই,সম্পত্তি নিলামের খবর অপপ্রচার-নাসির   ৮৩৩৭
  • জেনে নিন ছুলি দূর করতে কিছু ঘরোয়া উপায়   ৮৩০৭
  • ডিমের পর স্বয়ংসম্পূর্ণতার পথে সোনালি মুরগি   ৮২৩৮
  • মুসাফির কাকে বলে? মুসাফিরের রোযা ভঙ্গ করলে   ৮২৩০
  • গরুর দুধের অসাধারণ কয়েকটি গুণ   ৮০৩৩
  • খতমে ইউনুস নামে সামাজে চলে আসা জালিয়াতী   ৭১২৭
  • মুঘল সম্রাটদের দিনযাপন   ৬৬০৮
  • চিত্রনায়িকা সাহারার সেক্স ভিডিও ফাঁস!   ৬০০৯
  • হযরত শাহ্‌ জালাল ইয়েমেনী (রাঃ)-এঁর সংক্ষিপ্ত জীবনী   ৫৯১২
  • শিশুর কানে আজান দেবে কে?   ৫৫৪২
  • চিকিৎসায় দ্রুত সরকারি সহযোগিতা চান খাদিজার বাবা মাসুক মিয়া   ৫৩৩৯
  • কামরূপ-কামাখ্যা : নারী শাসিত যাদুর ভূ-খন্ড   ৫৩০১
  • ফুলবাড়ির বশর চেীধুরী আজ ইন্তেকাল করেছেন   ৫২৫৭
  • প্রশ্নব্যাংকে প্রশ্ন, স্বয়ংক্রিয়ভাবে বাছাই হয়ে পরীক্ষা   ৫২৫৬
  • ম,আ,মুক্তাদিরের ছেলে রাহাত লন্ডনে এক সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছে   ৫০৭৬
  • সাম্প্রতিক আরো খবর

  • সিলেটে মিডল্যান্ড ব্যাংক
  • ব্যাংকিং খাতে জবাবদিহিতার জন্য পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে : অর্থমন্ত্রী
  • অবকাঠামো উন্নয়নে ৬০ মিলিয়ন ডলার দেবে ওএফআইডি
  • বাংলাদেশ যথেষ্ট সক্ষমতা অর্জন করেছে : বিশ্বব্যাংক
  • ব্যাংকে একই পরিবারের ৪ পরিচালক রেখে সংশোধন বিল পাস
  • বিশ্বমানের নাট, বোল্ট, স্ক্রু তৈরি করছে ওয়াল্টন
  • ৮ ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল
  • ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক ফোরলেন প্রকল্প দেশীয় অর্থায়নে হবে: অর্থমন্ত্রী
  • সিপিডি দেশকে টেনে নিচে নামাতে চায় : অর্থমন্ত্রী
  • এস আলম স্টিলের ১০ শতাংশ লভ্যাংশ অনুমোদন
  • ‘বন্ড সুবিধার অপব্যবহার রোধে আরো কঠোর হোন’
  • রাজধানীতে স্মার্টফোন ও ট্যাব মেলা
  • রাজস্ব আদায়ের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে আশাবাদী অর্থমন্ত্রী
  • প্রতি ভরি সোনা ৫০ হাজার টাকার উপরে
  • একনেকে ১৩ প্রকল্প অনুমোদন
  • ট্রাভেল এজেন্সির নিবন্ধন ও নবায়ন অনলাইনে
  • বিদ্যুতের বাড়তি দাম বাতিল না হলে আইনি ব্যবস্থা: ক্যাব
  • ‘২০১৯ সালের মধ্যেই জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৮ শতাংশে উন্নীত সম্ভব’
  • এবি ব্যাংকের ঊর্ধ্বতন পাঁচ কর্মকর্তাকে দুদকের জিজ্ঞাসাবাদ
  • ‘২০১৮ সাল দেশ-জনগণের জন্য শুভ বার্তা বয়ে আনবে’
  • আজ প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিবের দায়িত্ব নিচ্ছেন নজিবুর রহমান
  • বন্ধ ১৩ টেক্সটাইল মিল চালুর উদ্যোগ
  • সবজির দাম কমেছে
  • ‘বাংলাদেশ ব্যাংক ঘেরাও ছেলেখেলার মতো আচরণ’
  • চট্টগ্রামে ইউসিবি’র ১৭৬তম শাখা