সর্বশেষ খবর

   সিলেটে মিডল্যান্ড ব্যাংক    রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারের প্রতিশ্রুতি ধোঁকাবাজি: আরসা    মাংস এবং উচ্চ ক্যালোরিযুক্ত পানীয় ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ায়    ইনস্টাগ্রামের নয়া ফিচার, দেখেছেন কি?    প্রকাশ্যে চুমু, ‘দেশি গার্ল’-এর বিদেশি রোম্যান্স    নেতানিয়াহুর সঙ্গে সাক্ষাতে অস্বীকৃতি তিন খানের    ১০৫ রানেই শেষ পাকিস্তানের ইনিংস!    আইপিএলে এলিট তালিকায় সাকিব    নেতাকর্মীদের জেলে রেখে নির্বাচন হবে না: ফখরুল    সুনির্দিষ্ট অভিযোগে ভিত্তিতেই গ্রেফতার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী    রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন হচ্ছে না কাল    সিলেটের দক্ষিন সুরমায় বাস-ট্রাক সংঘর্ষে নিহত ৪    সোবহানীঘাটে আবাসিক হোটেল থেকে প্রেমিক-প্রেমিকার লাশ উদ্ধার    মন্ত্রণালয়ের দুই কর্মকর্তাসহ নিখোঁজ তিনজন গ্রেফতার    যুবলীগের বিভাগীয় প্রতিনিধি সমাবেশে অর্থমন্ত্রীকে নিমন্ত্রণ    গোয়াইনঘাট থানার আসামী উপশহরে গ্রেফতার    হবিগঞ্জে জমির আইল কাটা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৪০    সিলেট জেলা বিএনপির আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত    কোম্পানীগঞ্জে পরীক্ষার্থীকে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন॥    দক্ষিণ সুরমায় সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেফতার


জাতীয়

জাতীয়করণের ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত আমরণ অনশন

সিলেট বার্তা, ২০১৮-০১-১২ ১৯:১৭:৩৫

তীব্র শীতকে উপেক্ষা করে জাতীয়করণের দাবিতে অবস্থান কর্মসূচির পর আমরণ অনশন করছেন বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষাবোর্ডের রেজিস্ট্রেশনপ্রাপ্ত ইবতেদায়ি মাদ্রাসার শিক্ষকরা।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ জাতীয়করণের ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত তারা আমরণ অনশন কর্মসূচি চালিয়ে যাবেন। এদিকে অনশনে অনেক শিক্ষক অসুস্থ হয়ে পড়েছেন বলে জানা গেছে।
শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে চাকরি জাতীয়করণের দাবিতে টানা চতুর্থ দিনের মতো আমরণ অনশন কর্মসূচি পালন করছে বাংলাদেশ স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসা শিক্ষক সমিতি।
শিক্ষক সমিতির সভাপতি রুহুল আমিন চৌধুরী বলেন, ইবতেদায়ি মাদ্রাসায় শিক্ষকতা করে আমরা মানবেতর জীবনযাপন করে আসছি। ন্যায্য দাবি প্রতিষ্ঠায় স্বতন্ত্র ইবতেদায়ি মাদ্রাসা জাতীয়করণের দাবিতে আমরা এর আগে আট দিন ধরে শীতের মধ্যে অবস্থান ধর্মঘট পালন করে আসলেও সরকারের পক্ষ থেকে সুনির্দিষ্ট কোনো আশ্বাস দেওয়া হয়নি। এ কারণে আজ চারদিন হলো আমরা আমরণ অনশন চালিয়ে যাচ্ছি।
সমিতির মহাসচিব মোখলেছুর রহমান বলেন, গত ১০ নভেম্বর প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করে প্রধানমন্ত্রী বরারব স্মারকলিপি দেওয়ার পর ৩১ ডিসেম্বর জাতীয়করণের ঘোষণার আলটিমেটাম দিয়ে কর্মসূচি  স্থগিত করা হয়। প্রধানমন্ত্রী ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত জতীয়করণের সিদ্ধান্ত না নেওয়ায় ১ জানুয়ারি থেকে ৮ জানুয়ারি লাগাতার অবস্থান ধর্মঘট পালন করা হয়। কিন্তু দাবি না মানার কারণে ৯ জানুয়ারি থেকে আমরণ অনশন পালন করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রী জাতীয়করণের ঘোষণা না দেওয়া পর্যন্ত আমরণ অনশন চলবে বলে জানান তিনি।
এদিকে অনশনে এখন পর্যন্ত ১০৫ জন অসুস্থ হয়েছেন বলে জানা গেছে। এদের মধ্যে ৫ জন ঢাকা মেডিক্যালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
সমিতির সভাপতি কাজী রুহুল আমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনশনে উপস্থিত আছেন, প্রধান উপদেষ্টা সাগর আহমেদ শাহীন, সিনিয়র সহসভাপতি নজরুল ইসলাম হিরণ, তাজুল ইসলাম ফরাজী, যুগ্ম মহাসচিব আবু মুছা ভূঁইয়া, অর্থ সম্পাদক জিয়াউল হক জিয়া প্রমুখ।

শেয়ার করুন

Print Friendly and PDF

আপনার মতামত দিন